অ্যালার্জি প্রতিরোধঃ ঘরোয়া পদ্ধতিতে অ্যালার্জির চিকিৎসা

ঘরোয়া পদ্ধতিতে অ্যালার্জি প্রতিরোধঃ

অ্যালার্জি বর্তমানে খুব পরিচিত একটি রোগ। ৮০ শতাংশ মানুষ এখন অ্যালার্জির সমস্যায় ভুগছেন। এই সমস্যাটি ভিন্ন কারণে হয়ে থাকে। অনেকের ধুলোবালির জন্য আবার অনেকের কোন খাবারে অ্যালার্জি হয়। তাই এই সমস্যার চিকিৎসার জন্য সর্বপ্রথম আমাদের জানতে হবে অ্যালার্জির মূল কারণ। কোন জিনিসের জন্য আমাদের অ্যালার্জি হচ্ছে। তারপর এর চিকিৎসা শুরু করতে হবে। ঔষধ বেশি খাওয়া আমাদের স্বাস্থ্যের জন্য ভালো নয়। কিছু প্রাকৃতিক উপাদান রয়েছে যার মাধ্যমে আমরা অ্যালার্জি সমস্যা থেকে কিছুটা হলেও মুক্ত পেতে পারি। তাই আজ এই নিবন্ধটিতে আমরা আপনাদের কিছু ঘরোয়া টোটকা দেব যা আপনাদের অ্যালার্জি প্রতিরোধ করতে সাহায্য করবে। আসুন তাহলে জেনে নেওয়া যায় ঘরোয়া পদ্ধতিতে অ্যালার্জি প্রতিরোধ করার টিপস ।

ঘরোয়া পদ্ধতিতে অ্যালার্জি প্রতিরোধঃ

সূত্র :- allergyandasthmaclinicalcenters . com

ঘরোয়া পদ্ধতিতে অ্যালার্জি প্রতিরোধঃ

চিকিৎসার পাশাপাশি অ্যালার্জি থেকে মুহূর্তের মধ্যে রেহাই পেতে ঘরোয়া পদ্ধতিতে অ্যালার্জি প্রতিরোধ করার জন্য টিপস নীচে রইল-

আপেল সাইডার ভিনিগারঃ

আপেল সাইডার ভিনিগারঃ

সূত্র :- boulderlocavore . com

উপকরণঃ

  • এক টেবিল চামচ আপেল সাইডার ভিনিগার ।
  • এক কাপ জল ।

ব্যবহার করবেন যেভাবেঃ

  • প্রথমে এক কাপ জল গরম করে নিন।
  • এবার উষ্ণ গরম জলে এক টেবিল চামচ আপেল সাইডার ভিনিগার ভালোভাবে মিশিয়ে নিন।
  • এবার তুলোর বলে এই মিশ্রণটি নিয়ে অ্যালার্জি আক্রান্ত অংশে লাগিয়ে রাখুন।
  • শুকিয়ে এলে ১৫ মিনিট পর ধুয়ে ফেলবেন।

অ্যালার্জি হওয়ার সময় দিনে দুইবার ব্যবহার করে দেখবেন উপকৃত হবেন।

সারকথাঃ

আপেল সাইডার ভিনিগারে রয়েছে এসিটিক এসিড, যা ত্বকের অ্যালার্জি দূর করে এবং ইনফেকশনের হাত থেকে রক্ষা করে ।

তুলসীপাতাঃ

তুলসীপাতাঃ

সূত্র :- dynamic-cdn.tinystep . in

উপকরণঃ

  • কয়েকটি তুলসি পাতা।
  • আদা।

ব্যবহার করবেন যেভাবেঃ

  • কয়েকটি তুলসীপাতা নিয়ে ভালোভাবে জল দিয়ে ধুয়ে নিন।
  • এবার তুলসীপাতাগুলি ভালোভাবে পেস্ট করে সঙ্গে আদার রস মিশিয়ে নিন।
  • এবার এই পেস্টটি যেখানে অ্যালার্জি হয়েছে সেই জায়গায় লাগিয়ে ১৫-২০ মিনিট বাদে ধুয়ে নিন। ভালো ফল পেতে দিনে কয়েকবার ট্রাই করে দেখুন।

সারকথাঃ

তুলসীর অ্যান্টি- ইনফ্লেমেটরি ত্বকের অ্যালার্জির দূর করতে সক্ষম ।

অ্যালোভেরাঃ

অ্যালোভেরাঃ

সূত্র :- eatdrinkpaleo . com . au

উপকরণঃ

  • অ্যালোভেরা জেল ।

ব্যবহার করবেন যেভাবেঃ

  • প্রথমে আলোভেরা গাছের পাতা নিন।
  • এবার পাতার ভেতর থেকে জেল বের করে অ্যালার্জি আক্রান্ত অংশে লাগিয়ে নিন।
  • ২৫-৩০ মিনিট রেখে জল দিয়ে ধুয়ে ফেলবেন। দিনে তিনবার ব্যবহার করলে ভালো ফল পাবেন ।

সারকথাঃ

অ্যালোভেরা জেল অ্যালার্জির জ্বালাভাব থেকে রেহাই দেয় ।

নিমপাতাঃ

নিমপাতাঃ

সূত্র :- 2.wlimg . com

উপকরণঃ

  • কয়েকটি নিমপাতা ।
  • আদা ।

ব্যবহার করবেন যেভাবেঃ

  • কয়েকটি নিমপাতা নিয়ে ভালোভাবে পরিষ্কার জলে ধুয়ে নিন।
  • এবার পরিষ্কার করা নিমপাতাগুলি সঙ্গে আদা নিয়ে পেস্ট করে নিন।
  • এবার পেস্টটি অ্যালার্জি আক্রান্ত অংশে লাগিয়ে ২০-২৫ মিনিট পর ধুয়ে নেবেন।
  • দিনে এটা ততবার বার লাগবেন যতক্ষণ না অ্যালার্জি নিরাময় হচ্ছে ।

সারকথাঃ

নিম অ্যান্টি- প্রদাহজনক ক্রিয়াকলাপের সঙ্গে অ্যালার্জি নিরাময় করতে সক্ষম ।

নারকেল তেলঃ

নারকেল তেলঃ

সূত্র :- static01.nyt . com

উপকরণঃ

  • অল্প পরিমাণে খাঁটি নারকেল তেল নেবেন ।

ব্যবহার করবেন যেভাবেঃ

  • অল্প পরিমাণে নারকেল তেল নিয়ে গরম করে নিন।
  • এবার নারকেল তেল কয়েক মিনিট হাতের তালুতে ঘসে নিয়ে অ্যালার্জি জায়গায় লাগিয়ে রাখুন।
  • ৩০ মিনিট পর ধুয়ে নিন। দিনে ৩-৪ বার ব্যবহার করবেন।

সারকথাঃ

নারকেল তেল স্ক্রিন অ্যালার্জির একটি দুর্দান্ত প্রতিকার ।

আদাঃ

আদাঃ

সূত্র :- muyinteresante . com . mx

উপকরণঃ

  • ছোট পরিমাণ আদার টুকরো।
  • এক কাপ জল।

যেভাবে ব্যবহার করবেনঃ

  • এক কাপ জলে ছোট পরিমাণ আদার টুকরো নিয়ে ভালোভাবে ফোটান।
  • এবার আদা মিশ্রিত জলটি ঠাণ্ডা হয়ে গেলে ছেঁকে অন্য পাত্রে তুলে রাখুন।
  • একটি তুলোর বল নিয়ে আদার জলটি অ্যালার্জি আক্রান্ত অংশে লাগিয়ে রাখুন।
  • ৩০ মিনিট পর পরিষ্কার করে নিন। দিনে কয়েকবার করলেই দেখবেন অ্যালার্জি কমে যাবে ।

সারকথাঃ

আদায় অ্যান্টি- ইনফ্লেমেটরি এবং অ্যান্টিমাইক্রোবাল বৈশিষ্ট্য রয়েছে যা অ্যালার্জি চিকিৎসার ভালো মাধ্যম।

লেবুর রসঃ

লেবুর রসঃ

উপকরণঃ

  • এক কাপ গরম জল ।
  • একটি পাতিলেবু ।

ব্যবহার করবেন যেভাবেঃ

  • প্রথমে জল উষ্ণ গরম করে নিন।
  • এবার গরম জলে লেবুর রস মিশিয়ে নেবেন ভালোভাবে।
  • একটি তুলোর বল দিয়ে অ্যালার্জি আক্রান্ত অংশে লাগিয়ে রাখুন।
  • শুকিয়ে গেলে ধুয়ে নেবেন। দিনে দুবার ব্যবহার করলে ফল বুঝতে পারবেন ।

সারকথাঃ

লেবুর রসে অ্যান্টি-ইনফ্লেমেটরি গুণ রয়েছে, যা ত্বকের ব্যাকটেরিয়া দূর করে পাশাপাশি অ্যালার্জি কম করে ।

সচরাচর জিজ্ঞাস্য প্রশ্ন উত্তরঃ

  • ঘরোয়া পদ্ধতিতে অ্যালার্জি প্রতিরোধ করা কি সম্ভব?
  • উপরের পদ্ধতিগুলি অনুসরণ করুন ভালো ফল পাবেন ।
  • ঘরোয়া পদ্ধতি চিকিৎসা করলে কি ডাক্তারের চিকিৎসার প্রয়োজন নেই?
  • ঘরোয়া পদ্ধতিতে অ্যালার্জি কমে গেলে প্রয়োজন নেই, তবে না কমলে অবশ্যই আপনাকে ডাক্তারের কাছে যেতে হবে ।
  • অ্যালার্জি চিকিৎসায় নিম কি ব্যবহার করা ভালো?
  • নিম খুব ভালো একটি উপাদান। অনেক রোগব্যাধি কমাতে সক্ষম। আর অ্যালার্জির জন্য নিমপাতা খুব উপকার ।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here