জেনে নিন, শিশুদের জন্য স্বাস্থ্যকর খাবার এ কী কী রাখা জরুরী

শিশুদের জন্য স্বাস্থ্যকর খাবারের গুরুত্বঃ

শিশুদের জন্য স্বাস্থ্যকর খাবারের গুরুত্বঃ

সূত্র :- activemomsnetwork . com

শিশুদের জন্য স্বাস্থ্যকর খাবারের গুরুত্বঃ

শিশুদের বেড়ে ওঠার জন্য স্বাস্থ্যকর খাবার অতন্ত্য জরুরী। শিশুরা ঠিক মত পুষ্টি না পেলে তাদের বৃদ্ধি হ্রাস পায়। সুতরাং একটা শিশুর পক্ষে খাবার যতটা জরুরী, ঠিক ততটাই জরুরী তার পুষ্টি।

কিন্তু মাথায় রাখতে হবে সে যেন সঠিক পুষ্টি পায়। তার খাবারে কোন মতেই জাঙ্ক জাতীয় খাবার না পড়ে। জাঙ্ক জাতীয় খাবার আপনার শিশুর শরীরকে বিপদের মুখে ফেলতে পারে। তাই সেই সমস্ত জিনিসের থেকে আপানার শিশুকে দূরে সরিয়ে রাখাতাই হবে শ্রেষ্ট।

সারকথাঃ

একটি বাড়ন্ত শিশুদের খাদ্যতালিকায় পুষ্টিকরযুক্ত খাবার খুব জরুরী। বাড়ন্ত বয়সে দেহের দরকার কিছু ভিটামিন ও মিনারেলর।

শিশুদের জন্য স্বাস্থ্যকর খাবারঃ

গবেষনায় দেখা গেছে , শিশুর উচ্চতা বৃদ্ধি একমাত্র চাবিকাঠি, পুষ্টিকর খাবার। এই সমস্ত পুষ্টিকর খাবার গুলি আপনি শিশুকে অনায়াসে দিতে পারেন।

অনেক সময় আমরা বুঝে উঠতে পারি না শিশুদের জন্য স্বাস্থ্যকর খাবারে কোন কোন খাবার রাখা উচিত,আর কি রাখা উচিত না। তাই কিছু পুষ্টিকর খাবারের নমুনা দেওয়া হল

বাচ্চাদের বিকাশে সেদ্ধ ডিমের উপকারিতাঃ

সূত্র :- boldsky . com

বাচ্চাদের বিকাশে সেদ্ধ ডিমের উপকারিতাঃ

ডাক্তারদের মতে, প্রতিনিয়ত খাবারের তালিকায় একটি সেদ্ধ ডিম বাচ্চাদের পুষ্টির দ্বিগুন মাত্রা বাড়িয়ে তোলে। ডিমে রয়েছে ভিটামিন-বি যা শিশুর মস্তিস্ক উন্নত করে। তাই প্রতদিন একটি সেদ্ধ ডিম খাওয়ালে আপানার বাচ্চার ৭০-৮০ শতাংশ বৃদ্ধির মাত্রা বাড়িয়ে তোলে।

এর থেকে বোঝা যাছে, একটি সেদ্ধ ডিম আপানার শিশুর বিকাশের প্রতিবন্ধকতাকে দূরে রাখতে সক্ষম করে। তাই শিশুদের জন্য স্বাস্থ্যকর খাবারের তালিকায় সেদ্ধ ডিম একটি অপরিহার্য উপাদান।

সয়া বীন উপকারিতাঃ

সয়া বীন হল এমন একটি প্রোটিন সমৃদ্ধ খাবার যা উচ্চতা বৃদ্ধির সঙ্গে সঙ্গে ওজনের বৃদ্ধি ঘটায়। শিশুদের শরীরে প্রোটিনের পরিমান বাড়ানোর জন্য সয়াবীন হল অতন্ত্য জরুরী। একবাটি সয়াবীন আপানার শিশুর শরীরকে তরতাজা রাখবে।

শিশুদের জন্য স্বাস্থ্যকর খাবারের তালিকায় সয়াবীন অবশ্যই রাখা দরকার।

পুষ্টির বিকাশে সবুজ শাক সব্জিঃ

সূত্র :- shape.com

পুষ্টির বিকাশে সবুজ শাক সব্জিঃ

শিশুদের খাবারের তালিকায় সবুজ শাক সব্জি থাকবে না এটা ভাবাই যায় না। শাক সব্জি হল এমন একটি পুষ্টিকর খাবার যাতে প্রোটিন-কার্বহাইড্রেড-ক্যালসিয়ামের মাত্রা বাড়িয়ে তোলে।

শাক সব্জির মধ্যে পালং-শাক, কপি, পটল, কুমড়ো ইত্যাদি রাখতে পারেন। শিশুদের জন্য স্বাস্থ্যকর খাবারের তালিকায় গুরুত্বপূর্ন ভূমিকা পালন করে।

শিশুর বিকাশে দুধের উপকারিতাঃ

দুধে রয়েছে ভিটামিন- এ, ভিটামিন -ডি, প্রোটিন,ক্যালসিয়াম, যা মিনালের এর কাজ করে, হাড় শক্তিশালী করে তোলে। শিশুর বিকাশে দুধ একটি অপরিহার্য উপাদান। অনেক সময় দেখা যায়, বাচ্চারা দুধ খেতে পছন্দ করে না। সেই সব বাচ্চাদের অন্য মাধ্যমে দুধ খাওয়ানোর ব্যবস্থা করতে পারেন যেমন- কাস্টার্ড, পুডিং –এর মাধ্যমে।

সম্পর্কিত নিবন্ধ চেক করুন :- 

টকদই –এর উপকারিতাঃ

শিশুদের জন্য স্বাস্থ্যকর খাবারে টকদই-এর ভূমিকা অপরিহার্য। এতে রয়েছে ক্যালসিয়াম, ভিটামিন-বি, কার্বোহাইড্রেড, প্রোটিন যা তুলনা মূলকভাবে বাচ্চাদের শক্তি যোগাতে সাহায্য করে। শিশুর বিকাশে এটিও একটি অপরিহার্য উপাদান।

ওটস-এর গুনাগুনঃ

সূত্র :- fitfoodiefinds . com

ওটস-এর গুনাগুনঃ

বাচ্চাদের অনেকক্ষন পেট ভরানোর জন্য নাস্তায় ওটসের ভূমিকা অপরিসীম। অনেকেই ভেবে থাকেন ওটস শুধুমাত্র বড়োদের জন্য, এই চিন্তধারাটা একদম-ই ভুল বরং শিশুদের মনোযোগী করে তুলতে ওটস অতন্ত্য জরুরী। তাই শিশুদের জন্য স্বাস্থ্যকর খাবার-এর তালিকায় ওটস আবশ্যই রাখবেন।

শিশুদের খাবরে গাজর ও বিনস-এর গরুত্বঃ

শিশুদের খাবারে গাজর, বিনসের গুরুত্ব অপরিসীম। গাজর ও বিনসের রয়েছে প্রোটিন, অ্যান্টি-অস্কিডেন্ট, ভিটামিন-বি, ফইবার যা শিশুর ওজন বাড়াতে সাহায্য করে। এটি শিশুদের পক্ষে একটি পুষ্টিকর খাবার। শিশুদের জন্য স্বাস্থ্যকর খাবার-এর তলিকায় এর তুলনা অপরিসীম।

মিষ্টি আলু প্রয়োজনীয়াঃ

সূত্র :- foodnetwork . com

মিষ্টি আলু প্রয়োজনীয়াঃ

মিষ্টি আলু শিশুদের জন্য স্বাস্থ্যকর খাবার হিসেবে অতন্ত্য জরুরী কারন এতে রয়েছে ক্যারোটিন যা শিশুর দৃষ্টিশক্তি বাড়তে সক্ষম।

কমলালেবু উপকারিতাঃ

ফল আর দুধে ক্যালসিয়ামের জুরি মেলা ভার। কমলালেবুর রস বাচ্চাদের পক্ষে খুবই উপকারী। কমলালেবুতে ক্যালসিয়াম ছাড়াও রয়েছে ভিটামিন-ডি, ভিটামিন-এ যা শরীরের জন্য অতন্ত্য জরুরী।

খাবারের তালিকায় মাছের গুনাগুনঃ

খাবারের তালিকায় মাছের গুনাগুনঃ

মাছে আছে অতিরিক্ত ক্যালসিয়াম। মাছ খাবারের তালিকায় না থাকলে পুষ্টি মাত্রা অনেক শতাংশ কমে যায়। মাছ বাচ্চাদের জন্য অতন্ত্য জরুরী প্রোটিনযুক্ত খাবার।

মাথায় রাখবেন যে শিশুদের জন্য স্বাস্থ্যকর খাবারে এটি অতন্ত্য প্রয়োজনীয়।

সারকথাঃ

প্রোটিন, ভিটামিনযুক্ত খাবার ছাড়া একটি শিশুর বিকাশ সম্ভব নয়।

শিশুর খাবারের তালিকায় অন্য সব খাবারের সাথে এই সমস্ত খাবার রাখুন। এই সব খাবারগুলি শিশুর স্বাস্থ্য সতেজ ও বৃদ্ধিতে সহায়তা করবে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here