সুপারস্টার দেব এর জীবন কাহিনী জেনে নিন

দেবের জীবনী

দেবের জীবনী

Biography
নামদীপক অধিকারী
ডাক নামদেব, রাজু
পেশাঅভিনেতা, প্রযোজক, রাজনীতিবিদ
বয়স৩৬ বছর
জন্মতারিখ২৫ ডিসেম্বর,১৯৮২
জন্মস্থানকেশপুরের মহেশখালি
জাতীয়indian
রাশিচক্রমকররাশি
ধর্মহিন্দু
শহরকলকাতা
ডেবিউঅগ্নিশপথ
পরিবার ও আত্মীয়স্বজন
পিতাগুরু অধিকারী
মা
মৌসুমী অধিকারী
ভাইNot Know
বোনদীপালী অধিকারী
স্বামী
উচ্চতা, ওজন এবং শারীরিক পরিমাপ
সেন্টিমিটারে উচ্চতা১৮৫ সেন্টিমিটার
মিটার উচ্চতা১.৮৫মিটার
ওজন৮০ কেজি
শারীরিক পরিমাপ৪৪-৩৩-১৫
বুকের আকার৪০ ইঞ্চ
কোমরের মাপ৩৪ ইঞ্চ
বাইসেপ সাইজ১৬ ইঞ্চ
চোখের রঙগাঢ় বাদামী
চুলের রঙকালো
অ্যাফেয়ার্স এবং বৈবাহিক অবস্থা
বৈবাহিক অবস্থাঅবিবাহিত
প্রেমিকারুক্মিণী মৈত্র
স্বামী
পুত্র
কন্যা
শিক্ষা ও স্কুল, কলেজ
শিক্ষাগত যোগ্যতাডিপ্লোমা কম্পিউটার ইঞ্জিনিয়ারিং
বিদ্যালয়বন্দ্রার পুরস্তম হাই স্কুল
কলেজপুনের ভারতীয় বিদ্যাপীঠ বিশ্ববিদ্যালয়
প্রিয় জিনিস
প্রিয় রঙলাল, নীল
প্রিয় অভিনেতারাজ কাপুর, অভিষেক বচ্চন, রাজেশ খান্না
প্রিয় অভিনেত্রীNot Know
পছন্দের খাবারচিকেন বিরিয়ানি
প্রিয় মিষ্টিNot Know
প্রিয় ফলNot Know
প্রিয় রেস্তোঁরাNot Know
শখক্রিকেট খেলা এবং জিম
প্রিয় পরিচালকNot Know
প্রিয় সিনেমাNot Know
প্রিয় বইNot Know
প্রিয় কার্টুনNot Know
প্রিয় খেলাধুলাক্রিকেট
প্রিয় ফুটবলারNot Know
প্রিয় গন্তব্যNot Know
অন্যান্য
নেট মূল্যRs. 15 crore
টুইটার

ফেসবুক
ইন্সটাগ্রাম

অভিনেতা দেব অধিকারী বাংলা চলচ্চিত্র জগতের খ্যাতনামা অভিনেতা এবং বর্তমান সংসদ সভার সদস্য। দেবের আসল নাম দীপক অধিকারী। তবে, বাংলা ইন্ডাস্ট্রি সবাই তাকে দেব নামেই চেনে। অগ্নিশপথ সিনেমার হাত ধরেই তিনি বাংলা চলচ্চিত্র জগতে প্রবেশ করে। ১৯৮২ সালে কেশপুরের মহেশখালি নামক গ্রামে জন্মগ্রহন করেন। খুব অল্প সময়ের মধ্যেই তিনি জনপ্রিয়তা অর্জন করেন। প্রচুর ভক্তদের মনে স্থান করে নেন। বিশেষত মহিলা ভক্তদের মনের কোনে। অধিকাংশ মহিলা ভক্তদের কাছে অভিনেতা দেব স্বপ্নের মানুষ। কিন্তু কেমন ছিল অভিনেতা দেবের জীবন কাহিনী? চলুন তাহলে আজ এই নিবন্ধটিতে আমরা জেনে নিই অভিনেতা সুপারস্টার দেবের জীবনী।

অভিনেতা দেবের জীবন কাহিনী (BIOGRAPHY)

অভিনেতা দেবের জীবনী – শৈশব জীবনঃ

অভিনেতা দেবের জীবনী – শৈশব জীবনঃ

সূত্র :- 1.bp.blogspot . com

১৯৮২ সালে ২৫ শে ডিসেম্বর কেশপুরের মহেশখালি নামক গ্রামে জন্মগ্রহন করেছিলেন অভিনেতা দীপক অধিকারী ওরফে দেব অধিকারী। তার বাবার নাম গুরু অধিকারী ও মা মৌসুমী অধিকারী। দেবের একটি বোন রয়েছে দীপালী অধিকারী। তার বোন ২০১৫ সালে ৯ ই আগস্ট বিবাহ করেন।

তার শৈশব কেটেছিল মামার বাড়িতে, চন্দ্রকোনায়। পরিবারে সবাই তাকে রাজু নামে চেনে। পরবর্তী কালে পড়াশুনোর জন্য মুম্বাইয়ে চলে যান। মুম্বাইয়ের বন্দ্রার পুরস্তম হাই স্কুল পড়াশুনো করেন। এবং পরবর্তীকালে পুনের ভারতীয় বিদ্যাপীঠ বিশ্ববিদ্যালয় থেকে ডিপ্লোমা কম্পিউটার ইঞ্জিনিয়ারিং ডিগ্রী অর্জন করে।
অভিনেতা দেব শিশুকাল থেকেই অভিনয়ের প্রতি আগ্রহ ছিল। এর জন্যই ডিপ্লোমা ডিগ্রী অর্জন করার পর থেকেই অভিনয় জগতে আসার জন্য অভিনয় শিখতে শুরু করেন। তাই ডিপ্লোমা করার পর, দেব মুম্বাই ফিরে এসে আব্বাস-মুস্তানের “টারজান দ্য ওয়ান্ডার কার” এর অভিনয় শেখেন।

অভিনেতা দেবের জীবনী – ক্যারিয়ার জীবনঃ

অভিনেতা দেবের জীবনী – ক্যারিয়ার জীবনঃ

সূত্র :- steemitimages . com

অভিনয় শেখার পর ২০০৫ সালে বাংলা চলচ্চিত্র জগতে প্রবেশ করে অগ্নিশপথ সিনেমার হাত ধরে। এটি ছিল তার বাংলা সিনেমা জগতে প্রথম ডেবিউ। এই সিনেমায় তিনি মুখ্য চরিত্রে অভিনয় করেন এবং তার সহঅভিনেত্রী ছিলেন রচনা ব্যানার্জী। যদিও সিনেমাটি সাফল্য অর্জন করতে ব্যর্থ ছিল।
বলাই বাহুল্য ২০০৭ সালে তার জন্য লাকি বছর ছিল। কারন সেই সালে তার দ্বিতীয় হিট ছবি শ্রী ভেঙ্কটেশ ফিল্মস প্রযোজিত রবি কিনাগীর পরিচালিত “আই লাভ ইউ”। এই ছবিতে দেবের বিপরীতে কাজ করেন পায়েল সরকার। সিনেমাটি বক্স অফিসে হিট ছিল। এই সিনেমাটির মাধ্যমে দেবকে ধীরে ধীরে দর্শক চিনতে শুরু করে।

দেবের জীবনী

সূত্র :- m.media-amazon . com

আই লাভ ইউ সিনেমা ভালোভাবে আর্থিক সাফল্য পাওয়া সত্ত্বেও অভিনেতা এক বছর কোন ছবির অফার গ্রহণ করেন নি। শোনা যায় এই এক বছর তিনি মুম্বাইয়ে গিয়েছিলেন নিজেকে আরও ভালোভাবে অভিনয় জগতে প্রতিষ্ঠা করার জন্য। মুম্বাইয়ে গিয়ে তিনি বিখ্যাত কোরিওগ্রাফার এজাজ গুলাবের কাছ থেকে ফাইটিং এবং নাচে শেখেন নিজেকে প্রশিক্ষিত করার জন্য।

মুম্বাইয়ে ভালোভাবে প্রশিক্ষিত হওয়ার পর কলকাতায় ফিরে আসে এবং অভিনয় জগতে অভিনয় শুরু করেন। তবে ২০০৮ সালে তার কামব্যাক ছিল অসাধারণ। মুম্বাই প্রশিক্ষিত হয়ে ২০০৮ সালে রবি কিনাগী পরিচালিত “প্রেমের কাহিনী” ছবিতে তাকে দেখা যায় । তার বিপরীতে ছিলেন অভিনেত্রী কোয়েল মল্লিক। সিনেমাটি বক্স অফিসে ভালো বাণিজ্যিক সাফল্য পায় । এবং সেই সালেই আরও একবার কোয়েল মল্লিকের সঙ্গে তাকে জুটিতে “ মন মানে না” সিনেমায় দেখা যায়।

সিনেমাটি বক্স অফিসে দুর্দান্ত সাফল্য পায় এবং দেবের জনপ্রিয়তা ছড়িয়ে পড়ে। এই সিনেমা টাইটেল ট্র্যাক মন মানে না গানটি নিয়ে ভক্তদের মাতামাতি শেষ ছিল না। পাশাপাশি দেব ও কোয়েলের জুটি মানুষের মনে জায়গা করে নেয়।

দেবের জীবনী

২০০৯ সালে জ্যাকপট সিনেমায় একটি অন্য চরিত্রে দেবকে দেখা যায়। এবং সেই সালেই দেবের মুক্তি প্রাপ্ত সুপারহিট সিনেমা রাজ চক্রবর্তী পরিচালিত “চ্যালেঞ্জ”। এই সিনেমায় প্রথমবার তাকে দেখতে পাওয়া যায় প্রাক্তন প্রেমিকা শুভশ্রী গাঙ্গুলির সঙ্গে জুটি বাঁধতে। বলাই বাহুল্য তাদের জুটি এবং সিনেমা দর্শকের মনে প্রানে সাড়া জাগিয়ে তুলেছিল। সিনেমা হলের সামনে দেবের ছবি নিয়ে দর্শকদের মাতামাতি কিছু কম ছিল না। অ্যাকশন-রোম্যান্স কম্বিনেশন এই ছবিতে প্রচুর সাফল্য অর্জন করেছিল। এবং এরপর থেকে দেবের জনপ্রিয়তা বৃদ্ধি পায় অনেকগুণ। এই ছবিটির জন্য আনন্দলোক অ্যাওয়ার্ডস থেকে সেরা অভিনেতা এবং সেরা অ্যাকশন হিরোর পুরস্কার লাভ করে।

এরপর থেকে অভিনেতা দেব একের পর এক ভালো পারফরমেন্স করে গেছেন। একাধিক সিনেমা দর্শকদের দিয়েছেন এবং তার হিট সিনেমাগুলির মধ্যে পরান যায় জলিয়া রে, বলো না তুমি আমার, দুই পৃথিবী, পাগ্লু, পাগ্লু ২, রোমিও, খোকা ৪২০, চাঁদের পাহাড়, বুনো হাঁস, আরশিনগর, ককপিট, কাবির বক্স অফিসে ভালো সাফল্য অর্জন করেছে।

 

View this post on Instagram

 

#Password Trailer Releasing Tomorrow 🙏🏻 Stay Tuned 🙏🏻

A post shared by Dev Adhikari (@imdevadhikari) on

অভিনেতা দেবের জীবনী – রাজনৈতিক জীবনঃ

অভিনেতা দেবের জীবনী – রাজনৈতিক জীবনঃ

বাংলা সিনেমা জগতে কাজ করার পাশাপাশি অভিনেতা দেব লোকসভা পার্লামেন্টর একজন সদস্য। ২০১৪ সালে তিনি রাজনীতিতে যোগদেন । ২০১৪ সালের লোকসভা নির্বাচনে তৃণমূল কংগ্রেস প্রার্থী হয়ে ঘাটাল থেকে ভোটে দাঁড়ান এবং প্রচুর ভোটে জয় লাভ করেন। অভিনেতার নির্বাচনে অংশগ্রহণ করার জন্য মানুষের কিছু মিশ্র প্রতিক্রিয়া দেখা যায়।

অভিনেতা দেবের জীবনী – ব্যক্তিগত জীবনঃ

অভিনেতা দেবের জীবনী – ব্যক্তিগত জীবনঃ

শুভশ্রী গাঙ্গুলীর সঙ্গে কাজ করার সময় অভিনেতা দেবের সম্পর্ক হয়। সেই সময় বাংলা সিনেমা জগতে শুভশ্রী গাঙ্গুলীর সঙ্গে দেবের ঘনিষ্ঠ সম্পর্ক সবাই জানত। দীর্ঘ পাঁচ বছর দুজনের প্রেমের সম্পর্ক ছিল। তবে পরবর্তী কালে তাদের প্রেমের সম্পর্ক বিচ্ছেদ হয়। যদিও প্রথমে তাদের সম্পর্ক তারা স্বীকার না করলেও পরে বিচ্ছেদের পর দেবের মুখেই শোনা যায় তাদের মধ্যে এখন শুধু বন্ধুত্বের সম্পর্ক ছাড়া অন্য কোন সম্পর্ক নেই।

বর্তমানে অভিনেতা দেব অধিকারী অভিনেত্রী রুক্মিণী মৈত্র’র সঙ্গে সম্পর্কে রয়েছে। সোশ্যাল মিডিয়া তাদের একসঙ্গে কাটানো বিভিন্ন ছবি তারা নিজেরাই পোস্ট করেন এবং তথ্যসূত্রে জানা যায় প্রথমে তারা দুইজনেই তাদের সম্পর্ক প্রকাশ্যে না আনলেও ইদানীং বিভিন্ন সাক্ষাৎকারে তারা খোলাখুলি তাদের সম্পর্ক নিয়ে আলোচনা করেন । দেব পশু পাখি খুব পছন্দ করেন এবং তার একটি খরগোশ আছে।

অভিনেতা দেবের জীবনী – অন্যান্য কাজঃ

অভিনেতা দেবের জীবনী – অন্যান্য কাজঃ

সিনেমার বাইরে অভিনেতা দেব জি বাংলায় “ডান্স বাংলা ডান্স” সিজেন ৮ বিচারক পদে ছিলেন মিঠুন চক্রবর্তীর পরিবর্তে।

অভিনেতা দেবের জীবনী – পুরস্কারঃ

অভিনেতা দেবের জীবনী – পুরস্কারঃ

আনন্দলোক অ্যাওয়ার্ডস (২০০৯), আনন্দলোক অ্যাওয়ার্ডস (২০১০), বিগ বাংলা মুভি অ্যাওয়ার্ড (২০১১), স্টার গাইড বাংলা ছবি অ্যাওয়ার্ড (২০১২), টেলি সিনে অ্যাওয়ার্ড (২০১৩), টলিউড ন্যাশনাল অ্যাওয়ার্ড (২০১৪)।

এই ছিল বাংলা চলচ্চিত্রের জনপ্রিয় অভিনেতা দীপক অধিকারীর কাহিনী । আশা করব দেবের জীবনী নিবন্ধটি আপনাদের ভালো লাগবে।
জনপ্রিয় মানুষদের ভালো ভালো তথ্য পেতে আমাদের অন্যান্য পেজগুলি সঙ্গে যুক্ত থাকুন।

সচরাচর জিজ্ঞাস্য প্রশ্ন উত্তরঃ

প্রঃ  দেব কোথায় জন্মগ্রহণ করেছে?

উঃ  কেশপুরের মহেশখালি গ্রামে দেব জন্মগ্রহণ করেন তবে সে চন্দ্রকোনায় বেসিরভাগ সময় তার মামার বাড়িতে শৈশব কাটান।

প্রঃ দেবের জন্মদিন কবে?

উঃ ২৫ শে ডিসেম্বর।

প্রঃ দেবের আয় কত?

উঃ একটি তথ্যসুত্রে জানা যায় ২০ কোটি টাকা তার পারিশ্রমিক।

প্রঃ দেবের প্রেমিকা কে?

উঃ বর্তমানে দেবের প্রেমিকা রুক্মিণী মৈত্র।

প্রঃ শুভশ্রী গাঙ্গুলীর সঙ্গে দেবের কত বছর সম্পর্ক ছিল?

উঃ দীর্ঘ পাঁচ বছরের সম্পর্ক ছিল তাদের।

প্রঃ দেব এবং শুভশ্রীর সম্পর্ক বিচ্ছেদ হল কেন?

উঃ মনোমালিন্য কারনে তাদের দুইজনের সম্পর্কে চিড় ধরে।

প্রঃ দেব কি খেতে ভালোবাসে?

উঃ চিকেন বিরিয়ানি দেবের প্রিয় খাবার।

প্রঃ দেবের প্রিয় রং কি?

উঃ দেবের প্রিয় রং লাল এবং নীল।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here