Khadya Sathi Prakalpa। খাদ্য সাথী প্রকল্প এর বিস্তারিত তথ্য

khadya sathi

khadya sathi

সূত্রঃ- wbxpress . com

Khadya Sathi Prakalpa In Bengali

পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের অনুপ্রেরণায় দরিদ্র মানুষদের জন্য একগুচ্ছ প্রকল্পের পদক্ষেপ নিয়েছে রাজ্য সরকার। 2016 সালে 27 জানুয়ারি আরও একটি প্রকল্পের উদ্বোধন করেন। যার নাম Khadya Sathi Prakalpa। খাদ্য সাথী প্রকল্প। এই প্রকল্পের হাত ধরে ৭ কোটি অর্থাৎ পশ্চিমবঙ্গের জনসংখ্যার প্রায় 90% দরিদ্র মানুষ 2 টাকা কেজি দরে চাল এবং গম পাবে। এছাড়াও মানুষ বাজার দরের অর্ধেক দামের খাদ্যশস্য পাবেন। খাদ্যসাথী প্রকল্পের অন্তর্ভুক্ত ৮ কোটি ডিজিটাল রেশন কার্ড প্রদান করা হয়েছে।আজকের এই নিবন্ধে Khadya Sathi Prakalpa। খাদ্য সাথী প্রকল্প এর বিস্তারিত তথ্য আপনাদের সঙ্গে শেয়ার করে নেব। আসুন তাহলে জেনে নিই এই প্রকল্প কি এবং এর সুবিধা।

khadya sathi prakalpa

সূত্রঃ- www.uniindia . com

খাদ্য সাথী প্রকল্প কি What is Khadya Sathi Prakalpa?

বাজারের জিনিসের দাম দিনের পর দিন বাড়ছে। এই পরিস্থিতিতেই, দরিদ্র পরিবারের অবস্থা আরও খারাপ হয়ে যাছে। আর্থিক অভাবের কারণে তারা তাদের প্রয়োজনীয় খাদ্যশস্য কিনতে পারছে না। তাদের কথা মাথায় রেখেই পশ্চিমবঙ্গ সরকার চালু করে খাদ্য সাথী প্রকল্প । Khadya Sathi Prakalpa। খাদ্য সাথী প্রকল্প অধীনে পশ্চিমবঙ্গ সরকার 7.49 Crores মানুষের কাছে ২ টাকা কেজি দরে চাল এবং গম সরবরাহ করবে এবং 50 লাখ মানুষ বাজারের দামের অর্ধেক দামে খাদ্যশস্য পাবে। Khadya Sathi Prakalpa। খাদ্য সাথী প্রকল্প এর সুবিধাভোগীদের মধ্যে রয়েছে 33 লাখ জঙ্গলমহল অঞ্চলে, 12 লাখ পুরুলিয়া জেলায় এবং চা বাগানের কর্মচারী এবং তাদের পরিবার, সাইক্লোনে ক্ষতিগ্রস্ত মানুষ, সিঙ্গুরের যেসমস্ত মানুষ যারা জমি হারিয়েছে, কলকাতার গৃহহীন মানুষ এবং দার্জিলিং এর পাহাড়ি অঞ্চলে মানুষ।

সোীকাূ

সূত্রঃ- i.ytimg . com

খাদ্য সাথী প্রকল্পের উদ্দেশ্য Objectives Of Khadya Sathi Prakalpa:

দরিদ্র এবং বঞ্চিত পরিবারকে খাদ্য সরবরাহের উদ্দেশ্যে পশ্চিমবঙ্গ সরকার এই প্রকল্প চালু করে। এই প্রকল্পের মূল উদ্দেশ্য দারিদ্র্যসীমার নিচে বসবাসকারী পরিবারগুলির ভর্তুকি প্রদান করা। দরিদ্র পরিবারগুলি তাদের সামর্থ্য অনুযায়ী যাতে খাদ্যশস্য কিনতে পারে। দারিদ্রতা দূর করা।

advantage khadya sathi

সূত্রঃ- sarkariniti . com

সুপারিশ নিবন্ধন :-

খাদ্য সাথী প্রকল্পের সুবিধা Benefits of Khadya Sathi Prakalpa:

খাদ্য সাথী প্রকল্পের সুবিধাগুলি হল-

  • এই প্রকল্পের অধীনে ব্যক্তিরা প্রতি কেজি ২ টাকা দরে চাল এবং গম পাবে।
  • পশ্চিমবঙ্গের 90 শতাংশ লোকজনকে চাল এবং গম দেবে।
  • এই প্রকল্পের অধীনে বাজারের দামের অর্ধেক দামে খাদ্যশস্য কিনতে পারবে।
  • প্রত্যেক মাথা পিছু পরিবার 35 কেজি চাল ও গম দেওয়া হবে।

খাদ্য সাথী

খাদ্য সাথী প্রকল্পের যোগ্যতা Eligibility Of Khadya Sathi Prakalpa:

Khadya Sathi Prakalpa। খাদ্য সাথী প্রকল্প এর অধীনে দরিদ্র পরিবারগুলি এই প্রকল্পের সুবিধা পাবে, তবে নীচে যোগ্যতা প্রযোজ্য।

  • আবেদনকারীকে পশ্চিমবঙ্গের স্থায়ী বাসিন্দা হতে হবে।
  • রেশন কার্ড ধারক এই প্রকল্পের সুবিধা পাবেন।
  • শুধুমাত্র দরিদ্র পরিবারগুলি এই প্রকল্পের জন্য যোগ্য।
  • জঙ্গলমহল, পুরুলিয়া জেলা, চা বাগানের কর্মচারী, সাইক্লোনে ক্ষতিগ্রস্ত মানুষ, কলকাতার গৃহহীন মানুষ, সিঙ্গুরের যারা জমি হারিয়েছে, দার্জিলিং এর পাহাড়ি অঞ্চলে মানুষ এই প্রকল্পের জন্য যোগ্য।

খাদ্য সাথী প্রকল্প

সূত্রঃ- http://aitcofficial . org

খাদ্য সাথী প্রকল্পের জন্য প্রয়োজনীয় ডকুমেন্টস Required Documents For Of Khadya Sathi Prakalpa:

এই প্রকল্পের জন্য যেসমস্ত Documents দরকার তা নীচে দেওয়া হল-

  • আধার কার্ড (Aadhaar card)
  • রেশন কার্ড ( ration card)
  • আবেদনকারীকে  ডিজিটাল রেশন কার্ডের জন্য আবেদন করতে হবে।

digital

সূত্রঃ- i.ytimg.com

How To Apply For Digital ration card? 

যারা এখনো ডিজিটাল রেশন কার্ড (Digital ration card) পাননি তারা নীচে দেওয়া লিংক গিয়ে আবেদন করতে পারবেন।

Click here: Digital ration card

আপনি যদি খাদ্য প্রকল্প এর জন্য যোগ্য হন এবং আপনার যদি ডিজিটাল রেশন কার্ড না থাকে । তাহলে আজই উপরে দেওয়া Link আবেদন করুন।

সারকথাঃ

খাদ্য সাথী প্রকল্পকে (Khadya Sathi Prakalpa) World Food Day হিসাবে মনোনীত করা হয়েছে ।

সচরাচর জিজ্ঞাস্য প্রশ্ন উত্তরঃ

প্রঃ Khadya Sathi Prakalpa এর সুবিধা কি?

উঃ এই প্রকল্পে আপনি রেশনে ২ টাকা কেজি দরে চাল এবং গম পাবেন।

প্রঃ খাদ্য সাথী প্রকল্পের জন্য Digital ration card কি লাগবেই?

উঃ এই প্রকল্পের সুবিধা পেতে গেলে আপনাকে প্রথমে Digital ration card করতেই হবে।

প্রঃ কারা Khadya Sathi Prakalpa এর সুবিধা পাবে?

উঃ জঙ্গলমহল অঞ্চলে বসবাসকারী লোকজন, দার্জিলিং এর পাহাড়ি অঞ্চলে বসবাসকারী লোকজন, পুরুলিয়া জেলায় এবং চা বাগানে কর্মরত,  সাইক্লোনে ক্ষতিগ্রস্ত মানুষ, এছাড়াও কলকাতার গৃহহীন মানুষ।

প্রঃ Khadya Sathi Prakalpa এ প্রত্যেক পরিবার কত পরিমাণ চাল ও গম পাবে?

উঃ এই প্রকল্পের অধীনে প্রত্যেক পরিবার মাসে মাথাপিছু 35 কেজি চাল এবং গম পাবে।

3 COMMENTS

    • একটি কার্ডে সম্ভবত মাসে ২ টাকা কেজি দরে ২ কেজি চাল এবং ৩ কেজি গম দেওয়া হবে।

  1. আমাদের পরিবার এ RKSY I রেশন কার্ড আছে . সেই কার্ড কে কি আবার ডিজিটাল রেশন কার্ড এর জন্য আবেদন করতে হবে.

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here